ইনকাম করুনআর্টিকেল কিনুনSubscribe
একনজরে পশ্চিমবঙ্গসাধারণ জ্ঞানবিপরীত শব্দসন্ধি বিচ্ছেদ FaceBookকুইজ খেলুনবিজ্ঞাপন আমাদের অ্যাপ
শিক্ষক
শিক্ষক ২৩ মে › #কুইজ #বাংলাদেশ
Follow Us  

পদ্মা সেতু সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান A to Z | পদ্মা সেতু রচনা

Table Of Contents

আপনি যদি পদ্মা সেতু সম্পর্কে জানতে চান তাহলে এই পোস্টটি পড়ে আপনি পদ্মা সেতু সম্পর্কে A to Z সাধারণ জ্ঞান পেতে পারেন। চলুন তাহলে পদ্মা সেতু সম্পর্কে আলোচনা করা যাক। 

পদ্মা সেতুর ইতিহাস

চলুন আমাদের টাইম মেশিনে বসুন ও সীট বেল্টটা বেঁধে নিন দয়াকরে 😎। এখন আমরা বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর।
এই মাত্র বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছে। আমরা সবাই খুশি। এখন বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি হলেন শেখ মুজিবুর রহমান।
কিছু বছর পরে , জাপান থেকে আগত জরিপ বিশেষজ্ঞদের একটি দল বাংলাদেশে একটি সড়ক নির্মাণের জন্য বাংলাদেশ সরকারকে একটি প্রতিবেদন জমা দেন। এই সড়কটি পদ্মা নদীর উপর নির্মিত হবে বলে ঠিক করা হয়। বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি শেখ মুজিবুর রহমান পদ্মা নদীর ওপর সেতু নির্মাণের ঘোষণা দেন। কিন্তু তাঁর মৃত্যুর কারণে প্রকল্পটি তৈরি করা সম্ভব হয়নি।

১৬ সেপ্টেম্বর, ১৯৯৮ সালে বাংলাদেশ সরকার বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা ও দেশের দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চল গুলির মধ্যে যোগাযোগ স্থাপনের লক্ষ্যে পদ্মা নদীর উপর একটি সেতু নির্মাণের জন্য ৩,৬৪৩.৫০ কোটি টাকার একটি প্রকল্পের প্রস্তাব করেন। ফলে ১৯৯৯ সালের জুলাই মাসে পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু।

১৯৯৯ - ২০১১ সাল : বাংলাদেশ সরকার নিজস্ব অর্থে ভূমি অধিগ্রহণ, পরিবেশ ব্যবস্থাপনা বিষয়ে পরিকল্পনা, সেতুর নকশা তৈরি করা প্রভৃতি কাজগুলো করেন। ২৮ এপ্রিল, ২০০৯ সালে বিশ্বব্যাংকের সাথে বাংলাদেশের ঋণ চুক্তি স্বাক্ষর হয়।

২০১১ - ২০১২ সাল : এপ্রিল মাসে বিশ্বব্যাংকের সাথে বাংলাদেশের ১২০ কোটি মার্কিন ডলারের ঋণচুক্তি হয়। কিন্তু উইকিপিডিয়া অনুযায়ী ১০ অক্টোবর, ২০১১ সালে দুর্নীতির অভিযোগ এনে পদ্মা প্রকল্পে অর্থায়ন স্থগিত করে বিশ্বব্যাংক

২০১৪ সাল :- ১৭ জুন, ২০১৪ সালে পদ্মা বহুমুখী সেতুটি নির্মাণের জন্য চায়না রেলওয়ে মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং গ্রুপের সঙ্গে বাংলাদেশ সরকারের চুক্তি হয়।

২০২২ সাল : ২৩ জুন, ২০২২ এই প্রকল্পের কাজ শেষ হয়। ২৫ জুন, ২০২২ পদ্মা সেতু উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ২৬ জুন এই সড়কটির ব্যবহার শুরু হয়।

দৈর্ঘ্য ও প্রস্থ:- পদ্মা সেতু হল বাংলাদেশের পদ্মা নদীর উপর নির্মিত একটি বহুমুখী সড়ক বা রেল সেতু। এই সেতুটির মোট দৈর্ঘ্য প্রায় ৬.১৫ কিমি বা ৩.৮২ মাইল বা ২০,১৮০ ফুট এবং প্রস্থ প্রায় ১৮.১০ মিটার বা ৫৯.৬৫ ফুট। 

স্প্যান:- এই সেতুটির মোট স্প্যান - এর সংখ্যা ৪১টি। প্রতিটি স্প্যান লম্বায় প্রায় ১৫০.১২ মিটার বা ৪৯২.৫ ফুট এবং চওড়ায় প্রায় ২২.৫ মিটার বা ৭৪ ফুট। 

দীর্ঘতম সেতু :- এই সেতুটি মোট দৈর্ঘ্যের দিক থেকে গঙ্গা নদীর উপর নির্মিত দীর্ঘতম সেতু। এছাড়াও, এটি স্প্যান সংখ্যার দিক থেকেও গঙ্গা নদীর উপর নির্মিত দীর্ঘতম সেতু। শুধুমাত্র তাই নয়, এই সেতুটি বিশ্বের গভীরতম পাইলের সেতু যেটির গভীরতা প্রায় ১২০ মিটার বা ৩৯০ ফুট। 

অবস্থান :- পদ্মা সেতুটির মোট দৈর্ঘ্য ৬.১৫ কিমি হওয়ার জন্য এটি কোনো একটি জেলার মধ্যে অবস্থিত নয় (মুন্সিগঞ্জের মাওয়া ও শরীয়তপুরের জাজিরা)। এই সেতুটি মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের সাথে শরীয়তপুর ও মাদারীপুর জেলাকে যুক্ত করেছে। এর স্থানাঙ্ক হল ২৩.৪৪৪৩° উত্তর ৯০.২৬১০° পূর্ব। আশা করি নীচের ছবিটি দেখে আপনি বুঝতে পারবেন পদ্মা সেতুটির অবস্থান।

ওয়েবসাইট :- link

২০২২ পদ্মা সেতু সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান A to Z | Padma Bridge রচনা বা অনুচ্ছেদ

পদ্মা সেতু সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান এবং প্রশ্ন ও উত্তর।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতু মূল প্রকল্পের নাম কী?

উত্তর:: পদ্মা সেতু মূল প্রকল্পের নাম হল পদ্মা বহুমুখী সেতু প্রকল্প

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর দৈর্ঘ্য কত কিলোমিটার?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর দৈর্ঘ্য হল ৬.১৫ কিমি বা ২০,১৮০ ফুট বা ৩.৮২ মাইল।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর প্রস্থ কত?

উত্তর::পদ্মা সেতুর প্রস্থ হল ১৮.১০ মিটার বা ৫৯.৬৫ ফুট।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর ভায়াডাক্ট কত কিলোমিটার?

উত্তর:: ৩.১৮ কিলোমিটর

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর সংযোগ সড়ক কত কিলোমিটার?

উত্তর:: দুই প্রান্তে মোট ১৪ কিলোমিটার

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর ভায়াডাক্ট পিলার কয়টি?

উত্তর:: ৮১ টি

প্রশ্ন ➤ মাটির কত মিটার গভীর গিয়ে পাইল বসানো হয়েছে পদ্মা সেতুতে?

উত্তর:: মাটির ১২০-১২৭ মিটার গভীর গিয়ে পাইল বসানো হয়েছে পদ্মা সেতুতে।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতু প্রকল্পে নদী শাসন হয়েছে কত কিলোমিটার?

উত্তর:: পদ্মা সেতু প্রকল্পে নদী শাসন হয়েছে দুই পাড়ে ১২ কিলোমিটার।

প্রশ্ন ➤ পানির স্তর থেকে পদ্মা সেতুর উচ্চতা কত?

উত্তর:: পানির স্তর থেকে পদ্মা সেতুর উচ্চতা ৬০ ফুট।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর পাইলিং গভীরতা কত?

উত্তর:: ৩৮৩ ফুট

প্রশ্ন ➤ প্রতি পিলারের জন্য পাইলিং কয়টি?

উত্তর:: প্রতি পিলারের জন্য পাইলিং রয়েছে ৬ টি করে। তবে ১২ টি পিলারের জন্য ৭ টি করে রয়েছে।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর মোট পাইলিং সংখ্যা কত?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর মোট পাইলিং সংখ্যা হল ২৬৪টি

পদ্মা সেতুর মোট পিলারের সংখ্যা ৪২টি। প্রতিটি পিলারের জন্য পাইলিং রয়েছে ৬টি করে। তবে মাটি জটিলতার কারণে ১২টি পিলারের পাইলিং হয়েছে ৭টি করে।
৪২ x ৬ = ২৫২ + ১২ = ২৬৪।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শুরু হয় কবে?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শুরু হয় ২৬ নভেম্বর, ২০১৪ সালে।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শেষ হয় কবে?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শেষ হয় ২৩ জুন ২০২২ সালে।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর পিলারের সংখ্যা কয়েকটি?

উত্তর::পদ্মা সেতুর পিলারের সংখ্যা ৪২ টি।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর পিলার ও স্প্যান সংখ্যা কয়টি?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর পিলারের সংখ্যা ৪২ টি ও স্প্যান এর সংখ্যা ৪১ টি। [প্রতিটি স্প্যান লম্বায় ১৫০.১২ মিটার বা ৪৯২.৫ ফুট এবং চওড়ায় ২২.৫ মিটার বা ৭৪ ফুট]

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর এক পিলার থেকে আরেকটি পিলারের দূরত্ব কত?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর এক পিলার থেকে আরেকটি পিলারের দূরত্ব ১৫০ মিটার।

প্রশ্ন ➤ কবে পদ্মা সেতুর পিলারের উপর প্রথম স্প্যান বসানো হয়?

উত্তর:: ২০১৭ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর পদ্মা সেতুর পিলারের উপর প্রথম স্প্যান বসানো হয়। শরীয়তপুরের জাজিরা প্রান্তে ৩৭ ও ৩৮ নম্বর পিলারের ওপর এই স্প্যান বসানো হয়।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর কোন কোন পিলারের উপর প্রথম স্প্যানটি বসানো হয়েছে?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর ৩৭ ও ৩৮ নং পিলারের উপর প্রথম স্প্যানটি বসানো হয়।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর সর্বশেষ স্প্যান কত তারিখে বসানে হয়?

উত্তর:: ২০২০ সালের ১০ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার দুপুর ১২ টা ০২ মিনিটে পদ্মা সেতুর ১২ এবং ১৩ নম্বর পিয়ারের উপর সর্বশেষ ৪১তম স্প্যানটি বসানো হয়।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর লেন কয়টি?

উত্তর:: পদ্মা সেতু ৭২ ফুটের চার (৪টি) লেনের সড়ক।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুতে রেললাইন স্থাপন হবে কোথায়?

উত্তর:: পদ্মা সেতুতে রেললাইন স্থাপন হবে নীচ তলায়।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর রেল লাইনের দৈর্ঘ্য কত?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর রেল লাইনের দৈর্ঘ্য ১৭৩ কিলোমিটার।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতু প্রকল্পে মোট ব্যয় কত?

উত্তর:: পদ্মা সেতু প্রকল্পে মোট ব্যয় প্রায় ৩০ হাজার ১৯৩ দশমিক ৩৯ কোটি টাকা।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতুর আয়ুষ্কাল কত?

উত্তর:: পদ্মা সেতুর আয়ুষ্কাল ১০০ বছর।

প্রশ্ন ➤ পদ্মা সেতু নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠানের নাম কী?

উত্তর:: পদ্মা সেতু নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠানের নাম হল চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কনস্ট্রাকশন কোম্পানি লিঃ

প্রশ্ন ➤ কবে পদ্মা সেতু উদ্বোধন করা হয়?

উত্তর:: পদ্মা সেতু ২৫ জুন ২০২২ সালে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দ্বারা উদ্বোধন করা হয়।

পদ্মা সেতু কুইজ।

এই পোস্টটি পড়ে আপনি কী জানলেন তা অনুশীলন করুন। কুইজ প্রতিযোগিতা অংশগ্রহণ করার জন্য নীচে আপনার নাম লিখুন এবং Start Quiz বাটনটি ক্লিক করুন। [🔺নীচের কুইজে আমরা কিছু ভুল উত্তর দিয়েছি সেইসব উত্তর গুলি নীচে কমেন্ট করো।]


একনজরে পদ্মা সেতু
মূল প্রকল্পের নাম পদ্মা বহুমুখী সেতু প্রকল্প
দৈর্ঘ্য ৬.১৫ কিমি বা ২০,১৮০ ফুট
প্রস্থ১৮.১০ মিটার বা ৫৯.৬৫ ফুট
উচ্চতা ৬০ ফুট (পানির স্তর থেকে)
পাইলিং সংখ্যা২৬৪টি
পিলার সংখ্যা৪২টি
স্প্যান সংখ্যা ৪১ টি
নির্মাণকাজ শুরু ২৬ নভেম্বর, ২০১৪ সালে
নির্মাণকাজ শেষ ২৩ জুন ২০২২ সালে
নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কনস্ট্রাকশন কোম্পানি
উদ্বোধন করেনপ্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা (২৫ জুন ২০২২)

শেষ কথা বা উপসংহার (conclusion).

এই পোস্টটিতে আমি আলোচনা করেছি পদ্মা সেতু সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান A to Z এবং ২০২০ , ২০২১, ২০২২ ও ২০২৩ সালের প্রশ্ন ও উত্তর গুলি তোমাদের সাথে শেয়ার করেছি। এছাড়াও তোমারা যাতে পদ্মা সেতু সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান গুলি অনুশীলন (practice) করতে পারেন তার জন্য একটি কুইজ প্রতিযোগিতা ব্যবস্থা করেছি। যদি এই প্রশ্ন গুলি ছাড়াও তোমাদের আরও কিছু জানা থাকে তাহলে অবশ্যই নীচে আপনার উত্তরটি লিখতে ভুলবেন না।

আরও পড়ুন
ঢাকা মেট্রোরেল সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান বিশ্ব উষ্ণায়ন কাকে বলে? এর কারণ, ফলাফল

শেয়ার
সেভ
শুনুন
2 টি উত্তর
Get AI answer for "পদ্মা সেতু সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞান A to Z | পদ্মা সেতু রচনা"
Generate Answer
  1. পদ্মা সেতুর উচ্চতা কত?
    পানির স্তর থেকে পদ্মা সেতুর উচ্চতা ৬০ ফুট।
    মন্তব্য
    শেয়ার
    শুনুন
  2. পদ্মা সেতু বাংলাদেশের একটি বহুমুখী সড়ক ও রেল সেতু। এটি পদ্মা নদীর উপর নির্মিত হয়েছে এবং মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের সাথে শরীয়তপুর ও মাদারীপুর জেলা যুক্ত করেছে। সেতুটি ২০২২ সালের ২৫ জুন উদ্বোধন করা হয়।

    পদ্মা সেতু ৬.১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ এবং ১৮ মিটার প্রশস্ত। এটি দক্ষিণ এশিয়ার দ্বিতীয় দীর্ঘতম সেতু এবং বাংলাদেশের সবচেয়ে দীর্ঘতম সেতু। সেতুটিতে ৪১টি পিলার এবং ৪২টি স্প্যান রয়েছে। স্প্যানগুলি ৪০০ টন ওজনের এবং প্রতিটি স্প্যানের দৈর্ঘ্য ১৫০ মিটার (৪৯০ ফুট)।

    পদ্মা সেতুর নির্মাণ ব্যয় হয়েছে ৩০,১৯৩ কোটি টাকা (৩.৮০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার)। সেতুটি নির্মাণে ১০ বছর সময় লেগেছে।

    পদ্মা সেতু বাংলাদেশের অর্থনীতিতে একটি বড় অবদান রাখবে।
    মন্তব্য
    শেয়ার
    শুনুন
একটি উত্তর লিখুন
banner

লেখালেখি করে মাসে ৪ - ৫ হাজার টাকা ইনকাম করুন।

Ask 3schools এর ব্যবহারকারীদের সাথে আপনার জ্ঞান শেয়ার করুন এবং মাসে ₹৫০০০ পর্যন্ত আয় করার সুযোগ পান। কন্টেন্ট লিখতে চাইলে "কন্টেন্ট লিখুন" এবং প্রশ্ন ও উত্তর লিখতে চাইলে "প্রশ্ন ও উত্তর লিখুন" বাটনটি ক্লিক করে সমস্ত বিষয়গুলো জেনে নিতে পারেন।

কন্টেন্ট লিখুনপ্রশ্ন ও উত্তর লিখুন
back
View All
ask 3schools